1. info@www.khulnarkhobor.com : khulnarkhobor :
বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:৫৪ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি/বিজ্ঞাপন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com    বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৪৭,আপার যশোর রোড (সঙ্গীতা হোটেল ভবন) নীচতলা,খুলনা-৯১০০।ফোন:০১৭১০-২৪০৭৮৫,০১৭২১-৪২৮১৩৫। মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:- ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
খুলনার খবর
দিঘলিয়ায় মাসিক আইন শৃঙ্খলা ও সমন্বয় কমিটির সভা বটিয়াঘাটা উপজেলা বাদাবন সংঘের অবহিত করন কর্মসূচি সভা অনুষ্ঠিত বাগেরহাটে বৃষ্টিপ্রার্থনায় মুসল্লিদের ইসতিসকার নামাজ আদায় কেশবপুরে ট্রাকের পেছনে ট্রাকের ধাক্কা, হেলপার নিহত, চালক গ্রেফতার ফের খুলনা অঞ্চলে তাপমাত্রা ছাড়ালো ৪২ ডিগ্রি কেশবপুরে স্কাউটিং বিষয়ক ওরিয়েন্টেশন কোর্স অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি’র কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণা শার্শায় স্মার্টফোনে ব‍্যাহত হচ্ছে শিক্ষার পরিবেশ,সমাজে বৃদ্ধি পাচ্ছে অসামাজিক কর্মকাণ্ড বাগেরহাটে বালু বোঝাই ট্রলির ধাক্কায় ভ্যানচালক ও তাঁর মায়ের মৃত্যু নেটওয়ার্ক আধুনিকায়নের লক্ষ্যে বাংলালিংক ও হুয়াওয়ের চুক্তি  ২৭ এপ্রিল যশোরে বিভাগীয় সভা সফল করতে খুলনায় সুজনের সভা কেন্দ্রীয় নির্দেশনা অনুযায়ী জেলা ছাত্রলীগের প্রচার সম্পাদকের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি লোহাগড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী তারিকুল ইসলাম উজ্জলের গণসংযোগ কেশবপুরে দুই মাদক কারবারিসহ গ্রেফতার-৩ পথচারীদের খাবার স্যালাইন ও পানি দিলেন মেয়র শেখ আ: রহমান বাগেরহাটে গভীর রাতে লাগা আগুনে ৬টি দোকান পুড়ে ছাই পাইকগাছায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেনের দাফন সম্পন্ন পাইকগাছায় গ্রাম ডাক্তার কল্যাণ সমিতির সভা অনুষ্ঠিত কেশবপুরে ঘোড়া প্রতীকে ভোট চেয়ে গণসংযোগ উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী মফিজুর রহমান মফিজের কেশবপুর চারুপীঠ একাডেমিতে শিশু বিষয়ক কর্মকর্তার মতবিনিময়

বটিয়াঘাটার জলমা ইউনিয়ন পরিষদে ভূয়া ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদানের অভিযোগ

  • প্রকাশিত : রবিবার, ৩ জুলাই, ২০২২
  • ৫১৫ বার শেয়ার হয়েছে

বটিয়াঘাটা প্রতিনিধি // বটিয়াঘাটা উপজেলার ১নং জলমা ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ভূয়া ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদানের অভিযোগ উঠেছে । বিষয়টি নিয়ে ভূক্তভোগীসহ এলাকাবাসীর মধ্যে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে ।

সূত্রে প্রকাশ, শহর সংলগ্ন  উপজেলার জলমা ইউনিয়ন বিভিন্ন এলাকার সাধারণ মানুষের বসবাসের উপযোগী স্থান হওয়ায় এ ইউনিয়নে জমির মূল্য আকাশচুম্বী হয়েছে। যে কারনে, বিভিন্ন মেয়াদে উক্ত ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যানবৃন্দ কর্তৃক ওয়ারেশ কায়েম সনদ নিতে অথবা জমির/ সম্পত্তির মালিক হতে গেলে জমির মূল্য অনুযায়ী অর্থ পরিশোধ করতে হয়েছে ।

জমির মূল্য অনুযায়ী অর্থ না দিলে কোন ওয়ারেশ কায়েম সনদ পাওয়া যায় না।বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যানদের শেখ পরিবার/ রাজ পরিবারের সুপারিশ আছে মর্মে নাম ভাঙ্গিয়ে উক্ত ভূয়া ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদানের অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।সম্প্রতি ১২ জুন জলমা ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য অশোক কুমার মন্ডলের সুপারিশে ছয়ঘরিয়া গ্ৰামের মৃতঃ  কৃষ্ণ মন্ডলের ৫ পুত্র মর্মে ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদান করেন । উক্ত কৃষ্ণ মন্ডলের ৫ পুত্র ওয়ারেশ যথাক্রমে উদয় মন্ডল, নিবারণ মন্ডল, সুধারাম মন্ডল,বিষ্ণু মন্ডল ও আদ্দাস মন্ডলকে ওয়ারেশ বানিয়ে স্থানীয় ছয়ঘরিয়া গ্ৰামের মৃতঃ জিতেন্দ্র মন্ডলের পুত্র রজত মন্ডলকে উক্ত ভূয়া ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদান করেন।

কিন্তু সমস্ত তথ্য প্রমাণে দেখা যায় প্রকৃতপক্ষে কৃষ্ণ মন্ডলের ২ পুত্র যথাক্রমে উদয় মন্ডল ও নিবারণ মন্ডল। অথচ বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান বিধান রায় ২ পুত্রের পরিবর্তে ৫ পুত্রকে ওয়ারেশ সৃষ্টি করে ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদান করেছে । এতে ভূক্তভোগীসহ এলাকাবাসীর মধ্যে চরম ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে ।
এ ব্যাপারে ভূক্তভোগী ছয়ঘরিয়া গ্ৰামের মৃতঃ চেচান মন্ডলের পুত্র কার্তিক মন্ডল এ প্রতিবেদককে বলেন, আমাদের নিকটতম শরীক ষষ্টী চরন মন্ডলের অনেক জমি । যার মূল্য প্রায় ৩/৪ কোটি টাকা। উক্ত সম্পত্তি ভূয়া ওয়ারেশ কায়েম সনদ সৃষ্টি করে ভাগাভাগি খাওয়ার অপ চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে ।

তিনি আরো বলেন, আমি ইউপি চেয়ারম্যান বিধান রায়কে বিষয়টি অবগত করেছি । তিনি পূর্বের ওয়ারেশ কায়েম সনদটি বাতিল করে নতূন ভাবে প্রকৃত সংশোধন সনদ প্রদান করা হবে বলে জানিয়েছে।

এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান বিধান রায় এ প্রতিবেদককে বলেন, আমি ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদান করি স্থানীয় স্ব-স্ব ওয়ার্ড ইউপি সদস্যসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিদের কাছ থেকে তথ্য সংগ্রহ পূর্বক তা যাচাই-বাছাইয়ের মাধ্যমে।উক্ত ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদান করার ক্ষেত্রে স্থানীয় ইউপি সদস্য অশোক কুমার মন্ডলের সুপারিশ ছিল । আমি ভূক্তভোগী মারফত জানতে পেরেছি উক্ত ওয়ারেশ কায়েম সনদ প্রদান ভুল হয়েছে। পূর্বের ভুল ওয়ারেশ কায়েম সনদটি বাতিল করে নতুন  করে সঠিক ভাবে দেয়া হবে।

এলাকাবাসী ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যদের ওয়ারেশ কায়েম সনদ বিক্রি বন্ধে শেখ পরিবার সহ প্রশাসনের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছে ।

শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:-  ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।