1. info@www.khulnarkhobor.com : khulnarkhobor :
রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৩:২৬ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি/বিজ্ঞাপন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com    বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৪৭,আপার যশোর রোড (সঙ্গীতা হোটেল ভবন) নীচতলা,খুলনা-৯১০০।ফোন:০১৭১০-২৪০৭৮৫,০১৭২১-৪২৮১৩৫। মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:- ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
খুলনার খবর
খুলনার ডাকবাংলায় আগুনে পুড়েছে ৩টি দোকান আজ পবিত্র শবে বরাত ঝিকরগাছা থানার দু’এএসআইসহ এক কনস্টেবলের বিদায় সংবর্ধনা নদী ও খাল খনন করে মিষ্টি পানির প্রবাহ সৃষ্টি করা হবে;মাছ ও ধান চাষ বাধ্যতামূলক করতে হবে-এমপি রশিদুজ্জামান ইসলামী ছাত্র আন্দোলন দৌলতপুর থানার সম্মেলন অনুষ্ঠিত; সভাপতি রাকিবুল,সম্পাদক তাজ কপিলমুনিতে রায় সাহেব বিনোদ বিহারী গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদকের ২৩তম স্মরনসভায় জেলার নেতৃবৃন্দরা কৈয়া প্রি ক্যাডেট স্কুলের ২দিন ব্যাপী ক্রীড়া প্রতিযোগীতার পুরষ্কার বিতরন দিঘলিয়ায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে মারামারিতে ৫ জন গুরুতর জখম বিদ্যানন্দকাটি মাছের ঘেরে বিষ প্রয়োগ করে তিন লক্ষ্যাধিক টাকার ক্ষতিসাধন বাগেরহাটে মুদি দোকানে আগুন; নিহত ১ আহত ২ নগরীর রায়েরমহলে সাবেক কাউন্সিলরের বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতি খুলনায় খাদ্য কর্মকর্তা ও তার স্ত্রীর বিরুদ্ধে দুদকের মামলা কেশবপুরে জাতীয় দিবসগুলো উদযাপন উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা বাংলাদেশ কোস্টগার্ড পশ্চিম জোনের অভিযানে ভারতীয় ঔষধ’সহ আটক ১ প্রাথমিক বিদ্যালয় পর্যায়ে সর্ব প্রথম একুশে বই মেলা-২০২৪ এর শুভ সূচনা একদিনের সফরে খুলনা আসছেন জুনাইদ আহমেদ পলক কেএমপি’র অভিযানে ১১৭ পিস ইয়াবা ও ৪৮৫ গ্রাম গাঁজাসহ গ্রেফতার ৮ নড়াইলে ফেন্সিডিলসহ এক মাদক কারবারি আটক নড়াইলে লাখো প্রদীপ জ্বালিয়ে ভাষা শহীদদের স্মরণ

এবার শীতের তীব্রতা হবে বেশি, থাকবে এপ্রিল পর্যন্ত

  • প্রকাশিত : রবিবার, ২৭ নভেম্বর, ২০২২
  • ১৭২ বার শেয়ার হয়েছে

খুলনার খবর // গত তিন বছরের চেয়ে এবারের শীত হবে বেশি। আন্তর্জাতিক আবহাওয়াবিদগণ জানাচ্ছেন ভারত মহাসাগর ও বঙ্গোপসাগর অঞ্চলে নির্ধারিত সময়ের আগে শীত শুরু হয়ে থাকবে আগামী বছরের এপ্রিল পর্যন্ত। এবার শীত সেভাবেই শুরু হয়েছে। নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহ অর্থাৎ কার্তিক মাসের মাঝামাঝিতেই শীত জেঁকে বসেছে হিমালয় পাদদেশীয় পঞ্চগড়সহ উত্তরের সকল এলাকায়। দিনে দিনে মারকারির লেভেল শুধু নিচেই নামছে।

এই সময়টায় হেমন্তের অগ্রহায়ণের মধ্যভাগে ঘন কুয়াশা ও শিশির ঝরছে শীত মৌসুমের মতো। গ্রামে সকাল-সন্ধ্যায় উত্তরের হুহু বাতাসে অনেক বাড়িতেই লেপ বের করতে হয়েছে। এখনই শীত কাবু করে তুলেছে। বেড়েছে শীতজনিত রোগব্যাধি।শহরাঞ্চলেও কাঁথা-কম্বল বের করতে হয়েছে। শহরাঞ্চলেও বেড়ে যাচ্ছে রোগ-ব্যাধি। এই সময়ে শহরে গোধূলি বেলা বেশিক্ষণ থাকছে না। সন্ধ্যার আগেই শীত জেঁকে বসে। হেমন্তকালের প্রকৃতির এই আলামত জানিয়ে দেয় শীত নেমেই গেছে। বড় নগরী ও মহানগরীর কংক্রিটের বনে শীতল বায়ু ধাক্কা খেয়ে কেবল শীতের আমেজ পড়েছে।

গত ক’বছরের শীতকাল ছিল উষ্ণ বলয়ের প্রভাবে শীত।সর্ব উত্তরের জেলাগুলো ছাড়া অন্যান্য এলাকায় শীত তেমন কাবু করতে পারেনি। তবে শীতের হাল্কা কাঁপুনি ছিল। গত নবেম্বর ডিসেম্বরে শীত জেঁকে বসতে পারেনি। জানুয়ারি ও ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যভাগ পর্যন্ত শীত ছিল। এবার সেই অবস্থা থাকছে না। ডিসেম্বরেই শীতের তীব্রতা বেড়ে যাবে। যা এপিলে গিয়ে শেষ হবে। এমনটি বলছেন উপমহাদেশের আবহাওয়াবিদগণ।

বর্তমানে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৩ থেকে ১৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে। পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও, দিনাজপুর, রংপুর, ঈশ^রদী, চুয়াডাঙ্গা ও যশোর অঞ্চলে শীত দ্রুতলয়ে ধেয়ে আসছে। তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে কমে যাচ্ছে। প্রকৃতি জানান দিচ্ছে এবার ডিসেম্বরের শীত কাঁপিয়ে তুলবে। জানুয়ারি মাস সবচেয়ে বেশি শীতল থাকে। গত বছর জানুয়ারিতে স্বাভাবিকের চেয়ে এক ডিগ্রি বেশি তাপমাত্রা ছিল। এবার এমনটি হবে না। ফেব্রুয়ারি মার্চ পেরিয়ে শীত ঠেকবে এপ্রিল পর্যন্ত। ওই সময়ের ফাল্গুনি হাওয়া তাপমাত্রা কমিয়ে দেবে।

আবহাওয়া বিষয়ক আন্তর্জাতিক সংস্থা জানাচ্ছে বিশ্বের আবহাওয়া চক্রের এই সময়ের আচরণ স্বাভাবিক নয়। গত তিন বছর প্রশান্ত মহাসাগরে আবহাওয়া পরিমাপক লা নিনার প্রভাব ছিল না। চলতি বছর লা নিনার প্রভাব দেখা যোচ্ছে। লা নিনা থাকলে প্রশান্ত মহাসাগরের মাঝ বরাবর তাপমাত্রা বেড়ে একটি উষ্ণ রেখা তৈরি করে।

বাতাস পূর্ব থেকে পশ্চিম দিকে বয়ে যায়। এতে বাতাস উষ্ণ ও পানি প্রশান্ত মহাসাগর থেকে ভারত মহাসাগর হয়ে বঙ্গোপসাগরে চলে যায়। লা নিনার এ ধরনের আচরণের ফলে বাংলাদেশ ভারত অস্ট্রেলিয়াসহ বিস্তৃত অঞ্চলে শীতকালে তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে কম থাকে। ফলে শীত বেশি পড়ে। এবার লা নিনা সেই আলামত স্পষ্ট করে তুলেছে।
একই সংস্থা ভারত মহাসাগরে আবহাওয়ার আরেকটি ধরন চিহ্নিত করেছে যা ইান্ডিয়ান ওশান ডাইপল বা ভারত মহাসাগরে দ্বিচক্র (আইওডি)। এটি সক্রিয় না থাকলে বাংলাদেশ ভারত অস্ট্রেলিয়ায় শীতকাল তীব্র হয়। অর্থাৎ শীত বেশি পড়ে। এ বছর আইওডি সক্রিয় না থাকায় এই অঞ্চলে শীত বেশি পড়বে। এমনটি আভাস দিচ্ছে আন্তর্জাতিক সংস্থা।

শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:-  ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।