1. info@www.khulnarkhobor.com : khulnarkhobor :
মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ১২:৫৩ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি/বিজ্ঞাপন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com    বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৪৭,আপার যশোর রোড (সঙ্গীতা হোটেল ভবন) নীচতলা,খুলনা-৯১০০।ফোন:০১৭১০-২৪০৭৮৫,০১৭২১-৪২৮১৩৫। মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:- ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
খুলনার খবর
দিঘলিয়ায় নির্মিত হচ্ছে মিনি স্টডিয়াম; পাথরের পরিবর্তে ইটের খোয়া ও ধূলো বালু শার্শা উপজেলার সরকারি অফিস গুলোতে বিদ‍্যুৎ অপচয় হচ্ছে দেদারসে লোহাগড়ায় মধুমতী নদী থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার লোহাগড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৭ মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি পালিত তেরখাদায় “অন্ধকার থেকে আলোর পথে” নাটকের শুভমুক্তি মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি ও হত্যার হুমকির প্রতিবাদে সাংবাদিক সম্মেলন পাইকগাছায় রেমালে লন্ডভন্ড ইটের সলিং এর রাস্তা অবশেষে স্বেচ্ছাশ্রমে সংস্কার পাইকগাছায় প্রতিদিনের কথা’র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সংবাদ সম্মেলন সাবেক ছাত্রলীগ নেতার কেশবপুর থানা পুলিশের অভিযানে ১ সাজাপ্রাপ্ত আসামিসহ ৮ জন গ্রেফতার মাও: সাখাওয়াত হোসেনের সুস্থতা কামনায় ইসলামী আন্দোলন খুলনা মহানগর নেতৃবৃন্দ দিঘলিয়ায় রেকর্ডীয় ভিপি জমিতে পাকা বাড়ি; বছর পেরিয়ে গেলেও উদ্ধার করতে পারেনি ভূমি অফিস ঝিকরগাছায় চুরি করতে এসে প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যা ও মেয়ে আহত জাতীয় রপ্তানি ট্রফি পেল খুলনার প্রিয়াম ফিশ এক্সপোর্ট প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় রপ্তানি ট্রফি পেল ৭৭ প্রতিষ্ঠান নড়াইলে সাংবাদিকের পরিবারের উপর হামলা ও প্রান নাশের হুমকির অভিযোগ শার্শায় পাট পচনের জন্য বৃষ্টির হাহাকার; কৃষকের মনে সংশয় লোহাগড়ায় পরিছন্ন ও সৌন্দর্যবর্ধন কর্মসূচির উদ্বোধন শার্শায় যুবককে ছুরিকাঘাত করে টাকা ছিনতাই

খুলনায় মসজিদের ইমাম কর্তৃক টাকা হাতিয়ে নেওয়ার মিথ্যা অভিযোগের প্রতিবাদ

  • প্রকাশিত : রবিবার, ২০ আগস্ট, ২০২৩
  • ৫১৯ বার শেয়ার হয়েছে

শেখ নাসির উদ্দিন,খুলনা || আজ রবিবার (২০আগষ্ট) বেলা সাড়ে ১১ টায় খুলনা প্রেসক্লাবে খুলনা জেলার পূর্ব রূপসা রেলস্টেশন জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব মাওঃ জাহিদুর রহমান সংবাদ সম্মেলন করে লিখিত বক্তব্যে বলেন, দীর্ঘদিন পূর্ব রূপসায় মসজিদে সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করছি এবং সাথে সাথে নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেড এর ফিল্ড অফিসার হিসেবে চাকুরী করেছি।
সেই সুবাদে আমি নিজের এবং আমার মাধ্যমে কিছু গ্রাহকের টাকা নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেড এ আমানত রেখেছি, এই ইমামতির সুবাদে আমার পূর্ব পরিচিত ও মুসল্লী খাদেমুল ইসলাম, আমার সাথে হালাল পন্থায় কোন আর্থিক প্রতিষ্ঠানে টাকা রাখার ইচ্ছা পোষণ করে এবং নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেড সম্পর্কে আমার কাছে তথ্য জানতে ইচ্ছা পোষণ করে,তখন আমি তাকে নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেড সম্পর্কে খোঁজখবর নিতে বলি।

তিনি খোঁজখবর নিয়ে নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেড এর গ্রাহকদের সাথে কথা বলেন,তাদের স্বচ্ছতা ও দ্বীনদার ব্যক্তিদের সমন্বয়ে আমানতদারিতায় আশ্বস্ত হয়ে স্বেচ্ছায় নিউ বসুন্ধরায় ১৮ লাখ টাকা রাখতে ইচ্ছা পোষণ করেন
এবং নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নিউ বসুন্ধরা রিয়েক্টেট লিমিটেডের মালিক আলহাজ্ব আব্দুল মান্নান সাহেবের সঙ্গে নোটারি পাবলিকের মাধ্যমে মালিক এবং গ্রাহক চুক্তিপত্র করে টাকা জমা রাখেন। পরবর্তীতে কয়েক মাস মূল টাকার লভ্যাংশ গ্রহণ করে, কিন্তু হঠাৎ করে নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের মালিক আলহাজ্ব আব্দুল মান্নান সাহেব দুদকের মামলায় কারাবন্দি হলে লভ্যাংশের টাকা পাওয়া বন্ধ হয়ে যায়, তখন খাদেমুল এবং তার পরিবার আমাকে ১৮ লাখ টাকা ফেরত দিতে চাপ সৃষ্টি করে, কিন্তু টাকা তো তারা সরাসরি নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেডে জমা রেখেছে এবং কোম্পানির মালিকের সঙ্গে নন জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর পূর্বক চুক্তিপত্র সম্পাদন করেছে।

সুতরাং আমি নিউ বসুন্ধরা লিমিটেডের একজন Fo মাত্র, এখন আমি তাদের টাকা ফেরত দিবো কি করে? তথাপিও আমি তাদেরকে বুঝাবার চেষ্টা করেছি, এবং নিউ বসুন্ধরা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগের মাধ্যমে তাদের টাকা পরিশোধের ব্যাপারে যোগাযোগ রক্ষা করি।

তিনি আরো বলেন,আমি কারো সাথে প্রতারণা করে টাকা আত্মসাৎ করি নাই, আমি হলফ করে বলতে পারি আমি চাই আমার ব্যক্তিগত টাকা এবং আমার গ্রাহকদের জমানো টাকা নিউ বসুন্ধরা রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের কাছে রাখা আমানত গ্রাহকগণ যথাযথভাবে ফেরত পায় আমি সেই চেষ্টা করছি।
এর জন্য মানববন্ধন করেছি, স্বারকলিপি প্রদান করেছি, সরকারের ঊর্ধ্বতন মহলের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করার চেষ্টা করেছি, তথাপিও তারা আমার নামে ১৮ লাখ টাকার মিথ্যা অভিযোগ সৃষ্টি করে আমার আর আমার পরিবারকে ভীত সন্ত্রস্ত করছে, আমি এমন তাবস্থায়ী প্রশাসনের হস্তক্ষেপে আমার এবং আমার পরিবারের জনজীবনের নিরাপত্তা কামনা করছি, এবং গ্রাহকদের এই টাকা ফেরত পেতে ঊর্ধ্বতন মহলের আন্তরিকতার সাথে হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
সংবাদ সম্মেলনে তার স্ত্রীসহ আত্মীয়-স্বজন উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:-  ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।