1. info@www.khulnarkhobor.com : khulnarkhobor :
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ০৬:১৩ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি/বিজ্ঞাপন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com    বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৪৭,আপার যশোর রোড (সঙ্গীতা হোটেল ভবন) নীচতলা,খুলনা-৯১০০।ফোন:০১৭১০-২৪০৭৮৫,০১৭২১-৪২৮১৩৫। মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:- ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
খুলনার খবর
উত্তাল খুলনা: কোটা সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের সড়ক অবরোধ লোহাগড়ায় দুটি মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে শিক্ষার্থী নিহত,আহত ৪ চলছে কমপ্লিট শাটডাউন; সারা দেশে মোবাইল ইন্টারনেট বন্ধ খুলনায় ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ ; সারাদেশে ২২৯ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন কেশবপুর থানা পুলিশের সাঁড়াশি অভিযানে ৩ মাদক ব্যবসায়ী নড়াইলে পুকুরে গোসল করতে গিয়ে দশম শ্রেণির শিক্ষার্থীর মৃত্যু মোংলায় হু হু করে বাড়ছে সবজি ও মাছের দাম: সাধারণ ক্রেতাদের নাভিশ্বাস পবিত্র আশুরা উপলক্ষ্যে কোরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠান মোরেলগঞ্জে পরিবহনের ধাক্কায় নিহত-১ ছাত্র হত্যা ও ছাত্রীদের লাঞ্ছিত করার প্রতিবাদে খুলনায় ইসলামী আন্দোলনের মিছিল কাল বৃহস্পতিবার সারাদেশে ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ ঘোষণা অনির্দিষ্টকালের জন্য কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ২৪ ঘন্টার ব্যবধানে মধুমতী নদী থেকে আরও এক অজ্ঞাত নারীর লাশ উদ্ধার অনির্দিষ্টকালের জন্য খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা সকল সিটি করপোরেশন এলাকায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ ঘোষনা শার্শায় বাল্য বিবাহ নিরোধ ও সচেতন মূলক সভা অনুষ্ঠিত নড়াইলে ৬০পিস ইয়াবা ও ১৫ পুরিয়া(০১ গ্রাম) হিরোইনসহ ৪ মাদক কারবারি গ্রেফতার দেশের সব স্কুল-কলেজ অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা যশোরে কোটাবিরোধী আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা

রামপালের সৌদি খেজুর বাগানের গাছে গাছে ফুল ও ফল আশা শুরু

  • প্রকাশিত : রবিবার, ২৪ মার্চ, ২০২৪
  • ১৩৬ বার শেয়ার হয়েছে

অতনু চৌধুরী(রাজু)বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধি || গাছে গাছে ঝুলছে আজওয়া, মরিয়ম, সুকারি, আম্বার’সহ বাহারি জাতের সব খেজুরের ফুল বা ফল। থোকায় থোকায় ঝুলে থাকা এসব খেজুর ফুল বা ফল কোনটি লাল ও কোনটি হলুদ। আকারভেদে কোনটি আবার গোল কোনটি লম্বা। রসালো মিষ্টি এ খেজুর বাগান গড়ে তুলেছেন বাগেরহাট জজ কোর্টের আইনজীবী মোঃ জাকির হোসেন।

বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার সন্ন্যাসী হাজিপাড়া গ্রামে নিজের ১৫ বিঘা জমিতে গড়ে তোলা তার এই বাগানে রয়েছে পাঁচ শতাধিক গাছ। এ বছর ফল ধরেছে ৮০টি গাছে। তিন বছর আগে রোপণ করা এ গাছগুলোতে ফল ধরেছে ২৫ থেকে ৩০ কেজি পর্যন্ত।

এ বিষয়ে আইনজীবী জাকির হোসেন বলেন, ২০১৪ সালে নিজের ১৫ বিঘা জমিতে নয়টি পুকুর খনন করে মাছ চাষ শুরু করি। সে সময় পুকুরের চারপাশ জুড়ে বিভিন্ন ফলের গাছও রোপণ করি। কিন্তু লবণ পানির জন্য এসব গাছে ঠিকমত ফল হচ্ছিল না। এসময় প্রচণ্ড লবণ পানির কারণে পুকুরে থাকা মাছও ভালো হচ্ছিল না। পরে ২০১৯ সালের প্রথম দিকে রামপাল সৌদি খেজুর বাগান নাম দিয়ে এই খেজুর চাষ শুরু করি।

তিনি আরও বলেন, এসময় ময়মনসিংহের ভালুকা থেকে ২০০ সৌদি খেজুরের চারা এনে রোপণ করি। পরবর্তীতে নরসিংদী থেকে আরও ১০০ চারা আনি। বর্তমানে আমার আজওয়া, মরিয়ম, সুকারি, আম্বার ও বারহি এই পাঁচ জাতের ৫ শতাধিক গাছ রয়েছে। এর আগে গত বছর প্রায় ৫০টি গাছে ফল ধরেছিল। এ বছর ৮০টি গাছে একযোগে ফলন এসেছে। আগামী বছর আমার বাগানে অন্তত ২০০ থেকে ৩০০ গাছে ফল আসবে বলে আশা করছি।

ইতোমধ্যে বেশ কিছু ফল ব্যবসায়ী আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেছে খেজুর ক্রয় করার জন্য। গত বছর যে ফল ধরেছিল, সেগুলো স্থানীয় বাসিন্দা’সহ বাগান দেখতে আশা মানুষের মধ্যে বিতরণ করেছি। এ বছরই প্রথম বাণিজ্যিকভাবে খেজুর বিক্রি শুরু করেছি। এ ছাড়া আমার বাগারে খেজুরের পাশাপাশি কয়েক প্রজাতির আম, আমড়া, মাল্টা’সহ বেশ কিছু ফলের গাছ রয়েছে।

এ বিষয়ে আইনজীবী জাকির হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার বাগানে কলম এর চারা রয়েছে। কারও লাগলে দিতে পারব। তবে সে ক্ষেত্রে দামটা একটু বেশি পড়বে। কারণ আমার বাগানের গাছগুলো উন্নতজাতের। আমিও অনেক বেশি টাকা ব্যয় করে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে গাছগুলো সংগ্রহ করেছি।

এবিষয়ে বাগান পরিচর্যার কাজে নিয়োজিত আশরাফ শেখের কাছে জানতে চাইলে তিনি এশিয়ান টেলিভিশনকে বলেন, আমাদের এখানকার পানিতে প্রচণ্ড লবণ। এ কারণে গাছপালাও ঠিকমত হতে চায় না। তবে আমরা ডিপ টিউবওয়েল বসিয়ে তা থেকে মিষ্টি পানি গাছের গোড়ায় দিই। এ ছাড়াও প্রতিটি গাছে বিশেষ যত্ন নিতে হয়।

এ বিষয়ে বাগেরহাট জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক মো. রফিকুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমাদের রামপাল উপজেলায় জাকির হোসেন নামের একজন আইনজীবী সৌদি খেজুর চাষে সফলতা পেয়েছেন। আমরা কৃষিবিভাগ তাকে বিভিন্ন পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছি। বিশেষ করে যখন ফুল ও ফল ধারণ করে, ফুল ও ফল যাতে ঝরে না পড়ে, এ ছাড়া বিভিন্ন পোকামাকড়ের আক্রমণ ও রোগবালাইয়ের আক্রমণে কী ধরনের ব্যবস্থা নিতে হবে এ বিষয়ে তার সঙ্গে আমাদের সার্বক্ষণিক যোগাযোগ আছে। শুধু তাই নয় জাকির হোসেনের দেখাদেখি যে সকল কৃষক আগ্রহী হয়েছেন খেজুর চাষে তাদেরকেও বিভিন্ন বিষয়ে পরামর্শ দেয়া হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন,সৌদি খেজুরের একটা সমস্যা হচ্ছে পুরুষ ও স্ত্রী গাছ আলাদা হয়। এ কারণে বীজ থেকে যে গাছগুলো তৈরি করা হয় তার অধিকাংশই ফল নাও ধরতে পারে। মূলত সাকারের মাধ্যমে এখান থেকে চারা সংগ্রহ করা হচ্ছে। আমরা আশা করছি এই যে সৌদি খেজুর চাষ করেছেন জাকির হোসেন এটা যদি আমাদের আর দক্ষিণাঞ্চলে বাণিজ্যিকভাবে চাষ করা যায়, তাহলে নতুন অর্থকারী ফসল হিসেবে এই খেজুরের অনেক সম্ভাবনা রয়েছে।

শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
Copyright © 2022 KhulnarKhobor.com মেইল:khulnarkhobor24@gmail.com।জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা আইনে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক নিবন্ধন আবেদিত।স্মারক নম্বর:-  ০৫.৪৪.৪৭০০.০২২.১৮.২৪২.২২-১২১।এই নিউজ পোর্টালের কোন লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।